ঢাকাসোমবার , ৪ সেপ্টেম্বর ২০২৩
  • অন্যান্য

ঢাকায় এক্সপ্রেসওয়ের কিলোমিটার প্রতি খরচ ১৯১ কোটি টাকা

অনলাইন ডেস্ক
সেপ্টেম্বর ৪, ২০২৩ ৩:১৫ অপরাহ্ণ । ৮১ জন
সংগৃহীত ছবি:

সড়ক পরিবহনে ভোগান্তি কমাতে দীর্ঘমেয়াদী যেসব পদক্ষেপ নেয়া হয়েছে তার মধ্যে প্রথম থেকেই আলোচনায় আছে ঢাকা এলিভেটেড এক্সপ্রেসওয়ে। প্রকল্প হাতে নেবার এক যুগেরও বেশি সময় পর সেপ্টেম্বর উদ্বোধন হতে যাচ্ছে এক্সপ্রেসওয়েটি।

 

উদ্বোধনের পর বিমানবন্দর থেকে ফার্মগেট পর্যন্ত সাড়ে ১১ কিলোমিটার রাস্তা ব্যবহারের জন্য চালু করা হবে।

প্রকল্পের শুরু থেকেই বলা হয়েছিল, ঢাকা-আশুলিয়া এলিভেটেড এক্সপ্রেসওয়ের সঙ্গে সংযুক্ত হয়ে ঢাকা ইপিজেড ও উত্তরবঙ্গের সঙ্গে চট্টগ্রাম বন্দরের যোগাযোগ সহজ হওয়ার পাশাপাশি ঢাকার যানজট নিরসনে এক্সপ্রেসওয়েটি উল্লেখযোগ্য ভূমিকা রাখবে।

 

তবে এত কম দূরত্বের এক্সপ্রেসওয়ে নির্মাণে বিশাল অংকের খরচ নিয়ে আছে সমালোচনা।

 

নির্বাচন সামনে রেখে পুরোপুরি কাজ শেষ হবার আগেই এক্সপ্রেসওয়েটি চালু করলেও যানজট নিরসনে এটা কতটুকু ভূমিকা রাখবে তা নিয়ে সংশয় রয়েছে।

 

কিলোমিটারে খরচ ১৯১ কোটি টাকা

বাংলাদেশ সেতু কর্তৃপক্ষের দেয়া তথ্যমতে ২০১১ সালের জানুয়ারি মাসে সরকারি-বেসরকারি অংশীদারত্বে ঢাকা এলিভেটেড এক্সপ্রেসওয়ে প্রকল্পের চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়।

হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমান বন্দরের দক্ষিণে কাওলা থেকে শুরু করে মগবাজার হয়ে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের কুতুবখালী পর্যন্ত প্রায় ২০ কিলোমিটার দৈর্ঘ্যের এক্সপ্রেসওয়ে নির্মাণের পরিকল্পনা করা হয়।

এক্সপ্রেসওয়েতে উঠা-নামার জন্য মোট ২৭ কিলোমিটার দীর্ঘ ৩১টি র‍্যাম্প রয়েছে। এই র‍্যাম্পসহ এলিভেটেড এক্সপ্রেসওয়ের মোট দৈর্ঘ্য প্রায় ৪৭ কিলোমিটার।

 

প্রকল্পটিতে মোট ব্যয় হয়েছে ৮,৯৪০ কোটি টাকা। সে হিসেবে এই এক্সপ্রেসওয়ের প্রতি কিলোমিটার নির্মাণে খরচ হয়েছে ১৯১ কোটি টাকারও বেশি।

 

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, বাংলাদেশের এখন পর্যন্ত করা মেগা প্রকল্প বা সড়কের মধ্যে সবচেয়ে ব্যয়বহুল প্রকল্প এটি।