ঢাকামঙ্গলবার , ৩০ জানুয়ারি ২০২৪
  • অন্যান্য

শিবগঞ্জ পৌরসভা উপ-নির্বাচনে মেয়র পদে মাঠে আছেন হাফ ডজন প্রার্থী

শিবগঞ্জ (বগুড়া) প্রতিনিধি
জানুয়ারি ৩০, ২০২৪ ৬:০৮ অপরাহ্ণ । ৫০ জন

বগুড়ার শিবগঞ্জ পৌরসভা উপ-নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা হয়েছে। আগামী ৯ মার্চ অনুষ্ঠিত হবে নির্বাচন। ইতোমধ্যেই এই পৌরসভায় মেয়র পদে প্রচারণায় নেমেছেন হাফ ডজন প্রার্থী। অনেকে দোয়া ও সমর্থন চেয়ে পোস্টারও শাটিয়েছেন বিভিন্ন এলাকায়। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমেও চালানো হচ্ছে প্রচারনা।

দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বগুড়া-২ (শিবগঞ্জ) আসনে শিবগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক তৌহিদুর রহমান মানিক আওয়ামী লীগের দলীয় মনোনয়ন লাভ করায় গত ২৮ নভেম্বর মেয়র পদ থেকে পদত্যাগ করেন। পরে দলীয় সিদ্ধান্তের কারণে বগুড়া-২ (শিবগঞ্জ) আসনটি সমঝোতায় জাতীয় পার্টিকে (জাপা) ছেড়ে দেওয়া হলে তিনি তাঁর মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার করেন।

শিবগঞ্জ পৌরসভার উপ-নির্বাচনে এবারে মেয়র পদে যারা লড়তে চান তাঁরা হলেন, শিবগঞ্জ পৌরসভার সাবেক মেয়র তৌহিদুর রহমান মানিক, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক রিজ্জাকুল ইসলাম রাজু,উপজেলা আওয়ামীলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ইঞ্জিনিয়ার আব্দুল মান্নান শেখ,ব্যবসায়ী হামদান মন্ডল, উপজেলা ছাত্র সমাজের সাধারণ সম্পাদক মোকাররম হোসাইন খোকন ও শিবগঞ্জ পৌর আওয়ামীলীগের যুগ্ম সম্পাদক রাসেল আহম্মেদ।

এই ছয়জন প্রার্থী ছাড়া বিএনপি,জামায়াতসহ অন্য কোন প্রার্থীকে এখন পর্যন্ত প্রচারণায় দেখা যায় নি।

শিবগঞ্জ উপজেলা আওয়ামীলীগের দপ্তর সম্পাদক সাহাব উদ্দীন শিবলী বলেন,গত ১৮ জানুয়ারি পৌর আওয়ামী লীগের বর্ধিত সভায় দলীয় একক প্রার্থী হিসেবে তৌহিদুর রহমান মানিকের নাম ঘোষণা করা হয়। তিনি পৌর এলাকার বিভিন্ন মহল্লায় উঠান বৈঠক ও সাধারণ ভোটারদের সাথে মত বিনিময়ের কাজে ব্যস্ত সময় পার করছেন। আমাদের বিশ্বাস এবারও তিনি বিপুল ভোটে নির্বাচিত হবে।

উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান ও উপজেলা আ.লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক রিজ্জাকুল ইসলাম রাজু বলেন, গরীব ও মেহনতী মানুষের পাশে থেকে সুখী, সমৃদ্ধ, শিক্ষিত ও মাদকমুক্ত পৌরসভা গড়তে চাই। পাশাপাশি রাস্তা-ঘাটা, ব্রীজ নির্মাণ করে পৌরবাসীর সকল নাগরিক সেবা সহজ করতে চাই।

এছাড়াও অপর মেয়র প্রার্থীরা একইভাবে পৌর এলাকার বিভিন্ন মহল্লায় উঠান বৈঠক, মত বিনিময় ও শুভেচ্ছা বিনিময় করছেন। ভোটারদের নিরাপদ বাসযোগ্য মডেল পৌরসভা, সন্ত্রাসী কার্যকলাপ থেকে পৌরবাসীকে রক্ষা করা ও টোল আদায় না করার অঙ্গিকার করে প্রচারণা চালিয়ে যাচ্ছেন তাঁরা।

শিবগঞ্জ উপজেলা বিএনপির সভাপতি মীর শাহে আলম জানান, বিএনপিসহ ৬৩ টি রাজনৈতিক দল ৭ জানুয়ারীর ডামি ও এক তরফা নির্বাচন দেশের ৯৫% ভোটার বর্জন করে এই অবৈধ সরকার কে লাল কার্ড দেখিয়েছে ।সেই ধারাবাহিকতায় শিবগঞ্জ এর পৌরসভার মেয়র পদের উপ-নির্বাচন সহ সকল নির্বাচন থেকে আমরা বিরত থাকবো ও ভোট বর্জন করবো ।দলের সিদ্ধান্তের বাইরে যাওয়ার কোন সুযোগ নাই।

শিবগঞ্জ উপজেলা নির্বাচন কর্মকতা শফিকুর রহমান আকন্দ বলেন, গত বৃহস্পতিবার শিবগঞ্জ পৌরসভা উপ-নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা হয়েছে। আগামী ৯ মার্চ অনুষ্ঠিত হবে নির্বাচন। ১৩ ফেব্রুয়ারি মনোনয়ন পত্র জমা দেয়ার শেষ দিন।  নির্বাচন সুষ্ঠু করতে প্রয়োজনীয় সব পদক্ষেপ নেয়া হচ্ছে।