ঢাকামঙ্গলবার , ৫ সেপ্টেম্বর ২০২৩
  • অন্যান্য

‘এবার সরকার ভুয়া নির্বাচন করতে পারবে না’

অনলাইন ডেস্ক
সেপ্টেম্বর ৫, ২০২৩ ৫:১৩ অপরাহ্ণ । ৬৪ জন
বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী

ক্ষমতাসীনদের প্রতি হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করে বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বলেছেন, বিএনপির এক নেতাকে সাজা দিলো তার জায়গায় আরেকজন গণতন্ত্রের পতাকা ধরবেন। এভাবে বিএনপি যে নেতাকেই সাজা দেবে তার পরিবর্তে তার জায়গায় আরেক নেতা দায়িত্ব নিবেন। আর এবার এই সরকার ভুয়া নির্বাচন করতে পারবেন না।

মঙ্গলবার রাজধানীর নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে এসব মন্তব্য করেন তিনি।
রিজভী বলেন, বাংলাদেশে এক অদ্ভুত শাসন বিরাজমান। এখানে ন্যায়বিচার ও বিধিবদ্ধ আইনী প্রক্রিয়ায় কোনো কাজ হয় না। সকল মামলায় জামিন পাওয়ার পরেও এবং আর কোনো মামলা দায়ের না করার উচ্চ আদালতের নির্দেশনা সত্ত্বেও যুবদলের সাধারণ সম্পাদক আব্দুল মোনায়েম মুন্নাকে মুক্তি দেয়া হয়নি। ইতিপূর্বে নানাভাবে তাকে আটকিয়ে রাখার যে বেআইনি কার্যক্রম দেশব্যাপী প্রত্যক্ষ করা হয়েছে তা নজীরবিহীন। হাইকোর্টের নির্দেশনা অমান্য করে ব্যাকডেট দিয়ে পেন্ডিং মামলায় মুন্নাকে আটকিয়ে রাখার পর আবারও উচ্চ আদালতে রিট করলে তাকে মুক্তির নির্দেশনা দেয়া হয়। সেই নির্দেশনাকে অগ্রাহ্য করা হয়েছে। জেল কতৃর্পক্ষ সম্পূর্ণরুপে নীরব।

তিনি বলেন, আব্দুল মোনায়েম মুন্না এ মুহূর্তে সকল মামলা থেকে জামিনপ্রাপ্ত। অথচ তাকে কারাগার থেকে বের হতে দিচ্ছে না জেল কতৃর্পক্ষ।

তারা বলছে চীফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেটের কাছ থেকে মুক্তির নির্দেশনা না পেলে মুন্নাকে ছাড়বে না। এই ঘটনা মানবাধিকারের চরম লঙ্ঘন। এ দেশে মানুষের নির্বিঘ্নে চলাচলের স্বাধীনতা, কণ্ঠের স্বাধীনতা, মত প্রকাশের স্বাধীনতাসহ নাগরিক স্বাধীনতা এখন শেখ হাসিনার আঁচলবন্দী। পুলিশ ও আদালত এ ক্ষেত্রে আইনের শাসনের বদলে সরকারের চোখ রাঙানিকেই আমলে নিচ্ছে।

 

সংবাদ সম্মলেন বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক আবদুস সালাম আজাদ, যুবদল সভাপতি সুলতান সালাউদ্দিন টুকু, ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক শফিকুল ইসলাম মিল্টন, বিএনপির নির্বাহী কমিটির সদস্য আবদুস সাত্তার পাটোয়ারী প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।